জামালপুরে অনূর্ধ্ব-১৩ স্কুল ক্রিকেট টুর্নামেন্ট শুরু

Jamalpur_prottoy
অনূর্ধ্ব-১৩ শহীদ দিবস ক্রিকেট টুর্নামেন্টের উদ্বোধন করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. মোকলেছুর রহমান।

জামালপুরের ক্রীড়াঙ্গনে নিজেদের ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনতে এবং ক্রিকেটসহ বিভিন্ন খেলাধুলায় ভালো খেলোয়াড় তৈরির লক্ষ্য নিয়ে জামালপুরে অনূর্ধ্ব-১৩ শহীদ দিবস ক্রিকেট টুর্নামেন্ট আয়োজন করেছে জামালপুরের ঐতিহ্যবাহী ক্রীড়া সংগঠন প্রত্যয় ক্লাব। জামালপুর জিলা স্কুল মাঠে আয়োজিত এ টুর্নামেন্টে অংশ নিচ্ছে জামালপুর শহরের মাধ্যমিক স্তরের সাতটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আটটি দল।

২২ ফেব্রুয়ারি সকালে জামালপুর জিলা স্কুল মাঠে এ টুর্নামেন্টের শুভ উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. মোকলেছুর রহমান। জামালপুরের প্রয়াত ভাষা সৈনিক সৈয়দ আব্দুস সোবহানের ছেলে ও প্রত্যয় ক্লাবের সভাপতি সিটি ব্যাংক কর্মকর্তা সৈয়দ জাহিদ সোবহান জয় ও প্রতিষ্ঠাতাদের অন্যতম আমেরিকান কোম্পানি অগমেডিক্সের বাংলাদেশ কার্যালয়ের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) রাশেদ মুজিব নোমান, ব্যবসায়ী শফিকুল ইসলাম শুভ, ভাষ্কর্য ও চিত্রশিল্পী জুনাঈদ খালিদ, টুর্নামেন্টের ক্রিকেটার নির্বাচক সাজেদুল ফারুক সতেজ, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড-বিসিবি’র জেলা ক্রিকেট প্রশিক্ষক মো. মিজানুর রহমান মিজু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের খুদে ক্রিকেট দলের সদস্য ও প্রতিষ্ঠানপ্রধানসহ অন্যান্য শিক্ষক ও স্থানীয় বিভিন্ন পর্যায়ের ক্রীড়া সংগঠকরা উপস্থিত ছিলেন।

- Advertisement -

টুর্নামেন্টের আয়োজকরা জানান, টি-২০ ফরমেটে দুটি গ্রুপে টুর্নামেন্টে অংশ নিচ্ছে ক-গ্রুপে বঙ্গবন্ধু আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ, সৃষ্টি সেন্ট্রাল স্কুল এন্ড কলেজ, উইজডম ল্যাব স্কুল এন্ড কলেজ, জামালপুর জিলা স্কুল (প্রভাতী) এবং খ-গ্রুপে রয়েছে জামালপুর জিলা স্কুল (দিবা), হযরত শাহ জামাল (রহ.) স্কুল এন্ড কলেজ, রেলওয়ে উচ্চ বিদ্যালয় ও শাহীন স্কুল এন্ড কলেজ দল।

উদ্বোধনী খেলায় ক-গ্রুপের বঙ্গবন্ধু আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ (২২১/৫) ১৫৩ রানের বিশাল ব্যবধানে হারায় সৃষ্টি সেন্ট্রাল স্কুল এন্ড কলেজকে (৬৮/১০)। অর্ধসেঞ্চুরি (৫১) ও তিন উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা হয়েছে বিজয়ী দলের অধিনায়ক নাসিম।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

বঙ্গবন্ধু আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ : ২০ ওভারে ২২১/৫ ( রাকিব ৬১, সীমান্ত ৫২, নাসিম ৫১, বিজয় ২/৩৭, সৌরভ ১/৩৯)

সৃষ্টি সেন্ট্রাল স্কুল এন্ড কলেজ : ১৫ ওভারে ৬৮/১০  (সেজান ২০, নাসিম ৩/১২, সজীব ৩/১৯)

ম্যাচটিতে আম্পায়ার ছিলেন তৌহিদ শুভ এবং শাহরিয়ার স্বপন।

প্রত্যয় ক্রিকেট ক্লাবের সভাপতি সৈয়দ জাহিদ সোবহান জয় বলেন, ‘১৯৮৭ সালের দিকে আমরা যখন জামালপুর জিলা স্কুলে পড়ি তখন প্রথম দিকে ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করেই আমরা প্রত্যয় ক্লাব গঠন করেছিলাম। তখন আমরা জিলা স্কুল প্রাঙ্গণের ছোট মাঠে খেলতে সমস্যা হতো বলে পাশেই ব্রহ্মপুত্র নদে শুকনো মৌসুমে ক্রিকেট খেলতাম। তখনকার শিক্ষকরা আমাদের বেশ উৎসাহ দিতেন। পরবর্তীতে আমরা জামালপুর স্টেডিয়াম সংলগ্ন জামালপুর জিলা স্কুল মাঠে আমরাই প্রথম ক্রিকেট খেলার উপযোগী পীচ তৈরি করি। সেই পীচেই আজো ক্রিকেট খেলা হচ্ছে এই মাঠে। মাঠ সমান করার যে রোলার মেশিনটি আমরা এনেছিলাম সেটি এখনো এখানেই রয়ে গেছে। পরবর্তীতে এই ক্লাবের হয়ে ক্রিকেট ও ফুটবলসহ অন্যান্য খেলাধুলায় বেশ উদাহরণযোগ্য স্মৃতি রয়েছে। কিন্তু ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতাদের প্রায় সবাই পেশা জীবনে জামালপুরের বাইরে অবস্থান করায় প্রত্যয় ক্লাব পরিচালনায় বেশ ভাটা পড়ে। এবার আমরা প্রতিষ্ঠাতা বন্ধু-স্বজনরা প্রত্যয় ক্লাবের পুরনো ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনতে উদ্যোগ গ্রহণ করেছি।’

জাহিদ সোবহান বলেন, ‘প্রত্যয় ক্লাবকে সুসংগঠিত করে অন্যান্য খেলার পাশাপাশি ক্রিকেট খেলা নিয়ে বেশি গুরুত্ব দিতে যাচ্ছি। আমরা প্রত্যয় ক্রিকেট একাডেমি নামে প্রাতিষ্ঠানিকভাবে জামালপুর জেলায় ভালো ক্রিকেটার তৈরি ও তাদেরকে জাতীয় পর্যায়ে নিয়ে যেতে পরিকল্পনা নিয়েছি। সেই পরিকল্পনার অংশ হিসেবেই এই অনূর্ধ্ব-১৩ শহীদ দিবস ক্রিকেট টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছি। মূলত এই টুর্নামেন্ট থেকেই বাছাই করা খুদে ভালো ক্রিকেটারদের নিয়েই প্রত্যয় ক্রিকেট একাডেমির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হবে।’

সৈয়দ জাহিদ সোবহান জয় আরো বলেন, ‘প্রত্যয় একাডেমির সাথে যুক্ত খুদে ক্রিকেটারদের নিয়মিত প্রশিক্ষণের পাশাপাশি তাদের পুষ্টি সহায়তারও ব্যবস্থা থাকবে। দরিদ্র শিক্ষারর্থীদেরকেও সব ধরনের সহায়তা দেওয়া হবে। ছেলেদের পাশাপাশি মেয়ে খুদে ক্রিকেটারদের জন্য আলাদা একটি বিভাগ খোলা হবে। যেখানে জামালপুর জেলায় বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্রীদের নিয়ে ক্রিকেটের প্রশিক্ষণের পাশাপাশি তাদের নিয়েও দল গঠন ও টুর্নামেন্টের আয়োজন করার পরিকল্পনা রয়েছে।’ নতুন উদ্যমে ফের ভালো কিছু করে দেখানোর এই প্রচেষ্টায় সবার সহযোগিতা কামনা করেছেন সৈয়দ জাহিদ সোবহান জয়।

আপনার মতামত দিন